বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১ । ১৯ ফাল্গুন ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

চমক নিয়ে শুরু হচ্ছে দীর্ঘ ধারাবাহিক ‘মধুপুর’

নিউজটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বিনোদন ডেস্ক : গল্প ও উপস্থাপন ভঙ্গিতে চমক নিয়ে বৈশাখী টিভিতে শুরু হচ্ছে এসএম শাহীনের পরিচালনায় দীর্ঘ ধারাবাহিক নাটক ‘মধুপুর’।

১৯ জানুয়ারি থেকে সপ্তাহের প্রতি মঙ্গল, বুধ ও বৃহস্পতিবার রাত ৮টায় প্রচার হবে নাটকটি। এ নাটকের বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করছেন- ফজলুর রহমান বাবু, অরুণা বিশ্বাস, ফারুক আহমেদ, নাদিয়া, মীর সাব্বির, এসএম মহসিন, নাজিরা মৌ, তানভির মাসুদ, তারিক স্বপন, আইরিন আজাদ, শেলী আহসান, জামিল, নাদিয়া মিম প্রমুখ।

নাটকের গল্পে দেখা যাবে- মধুপুর চিরচেনা বাংলার এক গ্রাম। তবে এক অভিশাপের কারণে অন্য গ্রাম থেকে মধুপুর একটু আলাদা। গত বিশ বছর ধরে মধুপুরের কোনো ছেলের সঙ্গে মধুপুরের কোনো মেয়ের বিয়ে হয় না; যা এক গুণিনের গণনার ফলে আরও ত্রিশ বছর বলবত থাকবে।

কাজেই মধুপুরে বেশ কিছু যুবক-যুবতী অবিবাহিত রয়ে গেছে। আশপাশের গ্রামেও এদের বিয়ে দেয়া যাচ্ছে না। সবাই জানেন মধুপুর একটি অভিশপ্ত গ্রাম, এ গ্রামে ছেলে বা মেয়ের বিয়ে দিলে বিপদ হবে।

গ্রামে আছেন একজন পেশাদার ঘটক। যাকে সবাই মনির ঘটক নামেই চেনেন। এ চরিত্রটিতে অভিনয় করেছেন ফজলুর রহমান বাবু। তিনি হাজার চেষ্টা করেও গত বিশ বছরে গ্রামের কারও বিয়ে দিতে পারেননি। যার কিনা নিজেরই দুইজন মাতৃহারা বিবাহযোগ্যা কন্যা আছে।

ওদের নাম নূরজাহান ও দিলজান। কন্যাদায়গ্রস্ত পিতা হয়ে তিনি পরের ছেলে-মেয়ের বিয়ের জন্য আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন; ফলে দূরের এক গ্রাম থেকে তিনি ‘জলপরী’ নামক এক কন্যার ছবি এনেছেন। যাকে বিয়ে করার জন্য গ্রামে রীতিমতো তোলপাড় শুরু হয়ে যায়।

এভাবেই নাটকে আবির্ভাব ঘটে বিভিন্ন চরিত্রের। গ্রামে শুরু হয় দ্বন্দ্ব-সংঘাত আর উত্তেজনা। এভাবেই আরও কিছু ঘটনায় এগিয়ে যায় নাটকটির কাহিনী।

আজকালের কন্ঠ /এম

Print Friendly, PDF & Email
শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »